pep.zone
Welcome, guest. You are not logged in.
Log in or join for free!
 
Stay logged in
Forgot login details?

Login
Stay logged in

For free!
Get started!

Text page


new.bangla.choti.pep.zone

দারুন একটা সময় কাটালাম

আনিকার সাথে আমার পরিচয়টা একদম হঠাৎ করেই। একদিন ফার্মগেটের ওভারব্রীজ থেকে নীচে নামার সময় একটা পোস্টার চোখে পড়লো “টিউটর দিচ্ছি/নিচ্ছি”। নীচে আকর্ষনীয় বেতনের হাতছানি। একটা ইংলিশ মিডিয়াম স্কুলে পড়ুয়া বাচ্চাকে পড়াতে পারলে এত্তো টাকা??! ঢাকাতে নিজের থাকা-খাওয়ার খরচতো উঠে আসবেই সেই সাথে কিছু শখ-আহ্লাদও পূরন করে ফেলা যাবে! যেইভাবা সেই কাজ পোস্টারে দেওয়া ফোন নাম্বারে ফোন করে রেজিষ্ট্রেশন করে ফেললাম।
সপ্তাহ দুয়েক পরের কথা। বিকেলে বাইরে যাবো বলে রেডী হচ্ছি এমন সময় ফোন আসলো। ওরা জানতে চাইছে ম্যাপললীফে ক্লাস এইটে পড়া এক ছাত্রীকে পড়াতে যেতে পারবো কিনা। ধানমন্ডিতে ছাত্রীর বাসায় গিয়ে পড়াতে হবে। আমিতো একপায়ে খাড়া। রাজি হয়ে গেলাম। পড়াতে যেতে হবে আগামীকাল থেকেই। আমি বাসার ফোন নাম্বার নিয়ে ছাত্রীর বাসায় ফোন করলাম। ফোন ধরলেন ছাত্রীর মা। কি সুন্দর গলা ওনার, আহা! ভীষন ভদ্র। আমার সাথে বিস্তারিত ফোনেই অনেক আলাপ সেরে নিলেন। বললেন দুপুরে মেয়েকে স্কুল থেকে বাসায় নামিয়ে দিয়ে উনি গাড়ী নিয়ে ওনার বুটিক শপে গিয়ে বসেন কিন্তু আমি যেনো দুপুরের পর পরই ওনাদের বাসাতে পড়াতে চলে যাই কারন বিকেলে আমার নয়া ছাত্রীর নাকি আবার নাচের ক্লাস আছে। আমিতো ভাবছি এই সেরেছে! ছাত্রীর বাসায় প্রথম যাবো অথচ বাড়ীতে অভিভাবক কেউ থাকবেননা…ব্যাপারটা কেমন হবে। যাহোক, সাত-পাঁচ ভাবতে ভাবতে দিনটা চলে গেলো। পরেরদিন দুপুরে আচ্ছা করে মাঞ্জা মেরে পৌঁছে গেলাম ধানমন্ডির বাসাতে।
কলিংবেলে চাপ দিয়ে একটু অপেক্ষা করতেই দরজা খুলে দিলো সুন্দরী এক তরুনী। আমি আন্দাজ করার চেষ্টা করলাম বয়স উনিশ-কুড়ি বছর হবে। সাদা সালোয়ার-কামিজে মোড়ানো ধবধবে ফর্সা শরীর, একটু গোলগাল একটা মুখ দেখলেই মনে হয় আদর করে দিই। ঠোঁটগুলো যেনো চুমু খাবার জন্য হাতছানি দিয়ে ডাকছে। আমি অবাক হয়ে ঠোঁটের মাঝ দিয়ে ঝকঝকে দাঁতের ঝিলিমিলি দেখছি এমন সময় প্রশ্ন ছুঁড়ে দিলো তরুনী। আমি সংবিৎ ফিরে পেয়ে আসার কারন বললাম। একটু মৃদু হেসে দরজা ছেড়ে দিলো তরুনী। ভেতরে আসার পথ দেখালো। বললো, আপনার নাম নিলয় আমি জানি। আমি আনিকা। আপনার ছাত্রীর একমাত্র বড়বোন। মন্ত্রমুগ্ধের মতো ওর কথা শুনতে শুনতে ড্রয়িং রুমের সোফাতে বসলাম।
আমার ছাত্রী এলো। বড়বোনের কাছে কিছুই নয় তবে বেশ সুন্দরী। আমি ...
Next part ►


This page:




Help/FAQ | Terms | Imprint
Home People Pictures Videos Sites Blogs Chat
Top
.